Home / কাবাব / বার-বি-কিউয়ের স্বাদে নরম ‘গোলা কাবাব’

বার-বি-কিউয়ের স্বাদে নরম ‘গোলা কাবাব’

গোলা কাবাব! নামটা গোলা হলেও স্বাদে কিন্তু মোটেও গোল্লা নয় এই কাবাব। নরম, স্পাইসি আর বার-বি-কিউ ফ্লেভারের জন্য নান/পরোটা আর শশার রায়তার সাথে খেতে এর স্বাদ অতুলনীয়। আর তৈরি করা? সেটাও খুব সহজ। সমস্ত উপকরণ একসাথে মেখে অল্প তেলে ভেজে নিলেই তৈরি এই কাবাব। একবার ভেজে নিলে সহজে নষ্ট হবে না, ফ্রিজে রেখেও খাওয়া যাবে কয়েকদিন। আর মেহমান এলে গরম গরম ভেজে দেবার ব্যবস্থা তো থাকছেই।

জেনে নিন সুমনা সুমির রেসিপি।

যা লাগবে

  • গরুর কিমা ১/২ কেজ়ি (মাংস আগে ধুয়ে পানি ঝরিয়ে কিমা করুন।কিমা করার পর ধোয়া যাবেনা)
  • কাঁচা পেপে বাটা ২ টেবিল চা্মচ (পেঁপে দিলে কিমা অনেক নরম হবে)
  • আদা-রসুন বাটা ১ টেবিল চা্মচ করে
  • ঘরে তৈরি করা বা কেনা কাবাব মশলা
  • কাঁচামরিচ মিহি কুচি ১ টেবিল চামচ
  • পেঁয়াজ বেরেস্তা ১/২কাপ (হাত দিয়ে ভেঙে নিন)
  • পুদিনা ও ধনে পাতা মিহিকুচি ২ টেবিল চামচ করে
  • লাল মরিচ গুঁড়ো ১চা চামচ
  • ঘি ১ টেবিল চামচ
  • ইয়োলো ফুড কালার ১/২ চা চামচ
  • বিট লবণ ১ চা চামচ ও লবণ প্রয়োজনমত

প্রনালি

  • সব মশলা সহ কিমা ভাল করে মিশিয়ে নিন।ফ্রিজে ৩-৪ ঘণ্টা রেখে দিন।
  • দুহাত পানিতে ভিজিয়ে নিন।এবার এক মুঠো কিমার মিশ্রন নিয়ে শিকে গেঁথে বা শাসলিক কাঠিতে গেঁথে নিন।
  • ফ্রাইপ্যানে ১ কাপ তেল বা ঘি দিয়ে কাবাবগুলো দিন। ঢেকে অল্প আঁচে ১০ মিনিট রাখুন। মাঝেমাঝে উল্টে দিন। বাদামি কালার হলে নামিয়ে নিন।
  • কাবাবগূলো বেশ নরম হয় বলে সাবধানে উল্টাতে হবে।
  • বাটার বা ঘি ব্রাশ করে নান বা সস বা রায়তার সাথে পরিবেশন করুন।

About J4jCJikUFi

Check Also

হাঁড়ি কাবাব

হাঁড়িমুখেও হাসি ফুটবে রন্ধনশিল্পী ডা. ফারহানা ইফতেখারের রেসিপিতে তৈরি হাঁড়ি কাবাব খেয়ে। উপকরণ: হাড় ছাড়া …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *